দেশের সফটওয়্যার নির্মাতা প্রতিষ্ঠানগুলোর শীর্ষ সংগঠন বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অফ সফটওয়্যার অ্যান্ড ইনফরমেশন সার্ভিসেস (বেসিস)-এর পক্ষ থেকে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিতের কাছে সফটওয়্যার ও আইটি সার্ভিস খাতের উন্নয়নে বাজেট প্রস্তাব পেশ করা হয়েছে। রবিবার অর্থ মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে আইসিটি ডিভিশন ও বেসিসের এক যৌথ সভা শেষে বেসিস সভাপতি শামীম আহসান অর্থমন্ত্রীর কাছে এই বাজেট প্রস্তাব পেশ করেন। বেসিসের প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে একথা জানানো হয়েছে।
অর্থ মন্ত্রণালয়ে আয়োজিত এ সভায় উপস্থিত ছিলেন আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক, আইসিটি সচিব শ্যাম সুন্দর সিকদার।
প্রস্তাবনায় আসন্ন জাতীয় বাজেটে (২০১৫-১৬) তথ্যপ্রযুক্তি নির্ভর সেবায় ট্যাক্স রহিতকরণ ২০২৪ সাল পর্যন্ত বর্ধিত করা, ই-কমার্সের মাধ্যমে কেনাকাটা জনপ্রিয় করতে প্রাথমিকভাবে আগামী ৩-৫ বছরের জন্য ই-কমার্সের সকল লেনদেনের ওপর থেকে খুচরা বিক্রয় পর্যায়ে মূল্য সংযোজন কর প্রত্যাহার, বিদেশে তৈরি কাস্টমাইজড সফটওয়্যার (অপারেটিং সিস্টেম, ডেটাবেজ ও ডেভেলপমেন্ট টুলস ব্যতীত) আমদানির ওপর শুল্ক আরোপ, তথ্যপ্রযুক্তি নির্ভর সেবার ওপর প্রযোজ্য ভ্যাট চার দশমিক পাঁচ শতাংশ থেকে কমিয়ে শূন্য শতাংশ করা, স্থানীয় সফটওয়্যার ব্যবহার করে বড় বড় ভ্যাটদাতা প্রতিষ্ঠানে ভ্যাট অটোমেশন চালু করা, সফটওয়্যার ও আইটিইএস কোম্পানির জন্য বাড়িভাড়ার ওপর থেকে নয় শতাংশ মূসক সম্পূর্ণরূপে প্রত্যাহার করাসহ বেশ কিছু বিষয়ে প্রস্তাব করা হয়।
অর্থমন্ত্রী সফটওয়্যার ও আইটি সার্ভিস খাতের এসব প্রস্তাব ও সুপারিশ অত্যন্ত মনোযোগ সহকারে শোনেন এবং তা গুরুত্বের সাথে বিবেচনার আশ্বাস দেন। অনুষ্ঠানে বিসিএসের পক্ষ থেকেও বাজেট প্রস্তাবনা পেশ করা হয়।