যুক্তরাষ্ট্রের হামলায় ৩০০ বেসামরিক লোক নিহত

0
259

ইরাকের মসুল ও সিরিয়ার রাকা শহরে যুক্তরাষ্ট্রের বিমান হামলায় তিন শতাধিক বেসামরিক মানুষ নিহত হয়েছে। এর মধ্যে শুধু মসুলে গত এক সপ্তাহে অন্তত ২০০ বেসামরিক নাগরিক নিহত হয়েছে। এতে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছে জাতিসংঘ। এ ঘটনা তদন্তের ঘোষণা দিয়েছে মার্কিন সেনাবাহিনী। বিবিসির খবরে বলা হয়, ইরাকে নিযুক্ত জাতিসংঘের এক ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা দাবি করেছেন, মসুলে যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্বাধীন জোট বাহিনীর বিমান হামলায় অন্তত ২০০ বেসামরিক মানুষ নিহত হয়েছেন। ‘জীবনহানির ভয়াবহ’ এ ঘটনায় নিহতের সংখ্যায় তিনি ‘বিমূঢ়’ হয়ে গেছেন বলে মন্তব্য করেছেন ওই কর্মকর্তা। ইসলামিক স্টেটের (আইএস) দখল থেকে মসুল পুনরুদ্ধারে ইরাকি বাহিনীর অভিযানে যুক্তরাষ্ট্রের যুদ্ধবিমানগুলো হামলা চালিয়ে সমর্থন দিচ্ছে।
অন্যদিকে সিএনএন জানিয়েছে, ইরাকের মসুল ছাড়াও সিরিয়ায় রাকা শহরে বিমান হামলায় বহু বেসামরিক নাগরিক হতাহতের ঘটনা ঘটেছে। এ বিষয়ে একটি তদন্ত শুরু করেছে মার্কিন নেতৃত্বাধীন জোট। তবে এ হতাহতের ঘটনা ঠিক কবে ঘটেছে তা জানা যায়নি। পশ্চিম মসুলের জাদিদেহ এলাকায় থাকা সাংবাদিকরা জানিয়েছেন, শুক্রবার বিধ্বস্ত বিভিন্ন ভবনের ধ্বংসস্তূপ থেকে ৫০টি লাশ টেনে বের করতে দেখেছেন তারা। মার্চের প্রথমদিকে চালানো হামলায় এসব ভবন বিধ্বস্ত হয়। যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক কর্মকর্তাদের বরাতে নিউইয়র্ক টাইমস জানিয়েছে, ১৭ থেকে ২৩ মার্চের মধ্যে চালানো বিমান হামলায় বেসামরিক মৃত্যুর প্রতিবেদনগুলোর বিষয়ে তদন্ত করছে জোট বাহিনী। বাগদাদে যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্বাধীন কমান্ডের মুখপাত্র কর্নেল যোশেফ স্ক্রোকা বলেছেন, ‘অভিযোগের বিষয়ে জোট একটি আনুষ্ঠানিক বিশ্বাসযোগ্য মূল্যায়ন শুরু করেছে। কথিত হামলার তারিখগুলো নিয়ে প্রশ্ন থাকায় এ প্রক্রিয়ায় সময় লাগবে।’
২০১৪ থেকে মসুল আইএসের দখলে আছে। ইরাকে জঙ্গিগোষ্ঠীটির এ শেষ শক্তিকেন্দ্রটি পুনরুদ্ধারে কয়েকমাস ধরে ব্যাপক অভিযান শুরু করেছে ইরাকি বাহিনী। জাতিসংঘের হিসাবে, পশ্চিম মসুলের পুরনো যে অংশটি এখন ইরাকি বাহিনী পুনরুদ্ধার করার চেষ্টা করছে সেখানে চার লাখ ইরাকি বেসামরিক আটকা পড়ে আছেন। যুক্তরাষ্ট্রের কর্মকর্তাদের ধারণা, এ অংশে বেসামরিক মানুষের মধ্যে ঘাপটি মেরে প্রায় দুই হাজার আইএস যোদ্ধা ইরাকি বাহিনীকে প্রতিরোধ করার চেষ্টা করছে। অন্যদিকে সিরিয়ার উত্তরাঞ্চলে মার্কিন বিমান থেকে একটি মসজিদে গোলাবর্ষণ করা হয়।