দক্ষিণ চীন সাগরে মার্কিন রণতরী, উত্তেজনা

0
363

মার্কিন রণতরী দি ইউএসএস স্টেথেম দক্ষিণ চীন সাগরের বিতর্কিত দ্বীপের কাছে নোঙর ফেলেছে বলে অভিযোগ করেছে চীন।

যুক্তরাষ্ট্রের রণতরীটি বিশেষভাবে ক্ষেপণাস্ত্র ধ্বংসে পারদর্শী। রোববার এটি চীনের নিয়ন্ত্রণাধীন বিতর্কিত প্যারাসেল দ্বীপপুঞ্জের ১২ নটিক্যাল মাইলের মধ্যে প্রবেশ করেছে। এই দ্বীপপুঞ্জ নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে চীন, তাইওয়ান ও ভিয়েতনামের মধ্যে বিবাদ চলছে।

এদিকে নিজের জলসীমায় মার্কিন রণতরীর প্রবেশ বড় ধরনের ‘রাজনৈতিক ও সামরিক উত্তেজনা’ বলে আখ্যা দিয়েছে চীন। এর জের ধরে চীন ওই দ্বীপপুঞ্জে রণতরী ও যুদ্ধবিমান পাঠিয়েছে।

রোববার চীনা পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক বিবৃতিতে জানানো হয়, চীন জাতীয় সার্বভৌমত্ব রক্ষায় সব ধরনের পদক্ষেপ গ্রহণ করবে।

বিবৃতিতে যুক্তরাষ্ট্রের বিরুদ্ধে ইচ্ছাকৃতভাবে সমস্যা সৃষ্টির অভিযোগও আনা হয়।

সোমবার ‘নৌ চলাচলের স্বাধীনতা’ বিষয়ে চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিং পিংয়ের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের ফোনালাপের কথা ছিল। তার আগেই এ ঘটনা ঘটল।

এদিকে সোমবার চীনের রাষ্ট্রীয় ট্যাবলয়েড গ্লোবাল টাইমসের এক সম্পাদকীয়তে বলা হয়েছে, যুক্তরাষ্ট্র দক্ষিণ চীন সাগরে রাজনৈতিক খেলা শুরু করেছে। তবে তাদের কোনো ষড়যন্ত্র সেখানে চীনা নির্মাণ কাজ বন্ধ করতে পারবে না।

এতে বলা হয়, ‘মার্কিন উসকানি কোনোভাবেই দক্ষিণ চীন সাগরের বর্তমান অবস্থার পরিবর্তন আনতে পারবে না।’

এর আগে বিভিন্ন সময় দক্ষিণ চীন সাগরে বিতর্কিত কর্মকাণ্ড থেকে সরে আসার জন্য চীনকে হুশিয়ার করেছিল যুক্তরাষ্ট্র। আর চীন বলছে, এটা তার সার্বভৌমত্বের অধিকার।