বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে দলটির নেতাকর্মীরা সুযোগ পেলেই তেল মারেন। তাদের এই প্রবণতা বাদ দেয়ার আহ্বান জানিয়েছেন বিএনপির অন্যতম পরামর্শক গণস্বাস্থ্যের প্রতিষ্ঠাতা ট্রাস্টি অধ্যাপক ড. জাফরুল্লাহ চৌধুরী।

তিনি বলেছেন, ‘খালেদা জিয়াকে তেল মারা বাদ দিতে হবে। খালেদা জিয়াকে সামনে পেলেই অনেকে অনেক রকমের বক্তব্য দিয়ে ম্যাডামকে মুগ্ধ করতে চান। এসব প্রবণতা বাদ দিয়ে যথাসময়ে আন্দোলনে ঝাঁপিয়ে পড়তে হবে।’

বৃহস্পতিবার বিকেলে রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনিস্টিটিউশনে জিয়াউর রহমানের ৩৪তম শাহাদাত বার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় তিনি এই আহ্বান জানান।

ড. জাফরুল্লাহ বলেন, ‘৫ জানুয়ারি অনির্দিষ্টকালের অবরোধ কর্মসূচি ঘোষণার পর রাজপথে ছাত্রদলের নেতাকর্মীদেরকে দেখা যায়নি। রাজনীতি করলে মামলা খেতে হবে। তাই বলে আত্মগোপনে থাকলে শেখ হাসিনা ইঁদুরের গর্তে সবাইকে ঢুকিয়ে দেবে।’

বিএনপিতে এক ব্যক্তিতে একাধিক পদ না দেয়ার আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, ‘একজন নেতাকে একটা পদ দিতে হবে। মহিলা দলকে আরো শক্তিশালী করতে হবে।’

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে উদ্দেশ করে তিনি বলেন, ‘অন্যায় অবিচার করে বেশিদিন ক্ষমতায় থাকা যায় না।’

আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া দর্শক সারিতে বসে অনুষ্ঠানের পুরো বক্তব্য শোনেন। প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা মহাসচিব সাবেক রাষ্ট্রপতি ডা. একিউএম বদরুদ্দোজা চৌধুরী।